নবার্ণ মন্ত্র রহস্য ও চণ্ডী রহস্য

“তামগ্নিবর্ণাং তপসা জ্বলন্তীং বৈরোচনীং কর্মফলেষু জুষ্টাম্। দুর্গাং দেবীং শরণমহং প্রপদ্যে সুতরসি তরসে নমঃ”।। আমি সেই বৈরোচিনী অর্থাৎ পরমাত্মা কর্ত্তৃক দৃষ্ট অগ্নিবর্ণা, স্বীয় তাপে শত্রুদহনকারিণী, কর্মফলদাত্রী দুর্গাদেবীর শরণাগত হই। হে সুতারিণি, হে সংসার-ত্রাণকারিণী দেবি, তোমাকে প্রণাম করি। “নবযোন্যাত্মকমিদং চিদানন্দঘনং মহৎ । চক্রং নবাত্মকমিদং নবধাভিন্নমন্ত্রকম্ ।।” (যোগিনীহৃদয়ম্  ১/১৩) —    নবযোন্যাত্মক এই চক্র চিদানন্দঘন ও মহৎ। নবাত্মক এই চক্রেরContinue reading “নবার্ণ মন্ত্র রহস্য ও চণ্ডী রহস্য”

তন্ত্র সাধনা

তন্ত্র – ‘তন’ ধাতুর উত্তর ‘ত্র’ প্রত্যয় যোগে ‘তন্ত্র’ শব্দ সৃষ্টি হইয়াছে। “তনু বিস্তারে”। তন্ ধাতুর অর্থ বিস্তারিত হওয়া। ত্র- প্রত্যয়ের অর্থ ত্রাণ করা। ‘তন্ত্র’ জীবনকে এমন ভাবে বিস্তারিত করে যে, এই পথের সকল সাধক সমস্থ দুঃখ হইতে ত্রাণ লাভ করে। শিবশক্তি-প্রক্ত সাধন বিষয়ক সকল শাস্ত্রই তন্ত্র নামে অভিহিত। তান্ত্রিক সাধনায় জাতি-বর্ণনির্বিশেষে সবারই অধিকার আছে।Continue reading “তন্ত্র সাধনা”